শনিবার | ২রা মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৮ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম
শ্রীমঙ্গলের সেন্ট মার্থাস উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরনী ফুলতলা ইউনিয়নে আইনশৃঙ্খলা সভা অনুষ্ঠিত মৌলভীবাজারে একতা যুব সংস্থার তাফসিরুল কোরআন মাহফিল ৩০ জানুয়ারি শীতার্ত মানুষের কল্যাণে স্টুডেন্ট ওয়েলফেয়ার সোসাইটির শীতবস্ত্র বিতরণ ‘বলাই-সজীব ভাই-ভাই, এক দড়িতে ফাঁসি চাই’ কুশিয়ারা পাড়ের ঐতিহ্যবাহী পৌষ সংক্রান্তির মাছের মেলা অদক্ষ চালক কেড়ে নিল প্রাণ; নতুন বই নিয়ে বাড়ি ফিরা হল না খাদিজার কুলাউড়ায় ঐতিহ্যবাহী ‘মাছের মেলা’ নবনির্বাচিত কৃষিমন্ত্রীকে ফুলেল শুভেচ্ছা দিয়েছে জেলা আওয়ামিলীগ শ্রীমঙ্গলে হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের উদ্যোগে ত্রিপুরা পল্লীতে শীতবস্ত্র বিতরন

প্রথম বাংলাদেশি নারী হিসেবে নাহিদার ইতিহাস

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: সোমবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০২৩, ২:০৬ অপরাহ্ণ

প্রথম বাংলাদেশি নারী হিসেবে আইসিসির মাসসেরা ক্রিকেটারের পুরস্কার জিতেছেন টাইগ্রেস স্পিনার নাহিদা আক্তার। মাসসেরার দৌড়ে তিনি পেছনে ফেলেছেন জাতীয় দল সতীর্থ ফারজানা হক এবং পাকিস্তানের সাদিয়া ইকবালকে। 

গত আগস্টে পাকিস্তান নারী দলের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজ জিতে ইতিহাস গড়ে বাংলাদেশ নারী দল। এরপর নভেম্বরে একই প্রতিপক্ষের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ জিতেছে বাংলাদেশের মেয়েরা। যেখানে বড় অবদান ছিল নাহিদা আক্তারের।

পাকিস্তান নারী দলকে ২-১ ব্যবধানে হারায় বাংলাদেশ নারী দল। যেখানে ৭ উইকেট শিকার করে সিরিজ সেরার পুরস্কার জেতেন নাহিদা। তার বোলিং গড় ছিল মাত্র ১৪।

মাসসেরার পুরস্কার জয়ী নাহিদা বলেন, ‘এই মুহূর্ত মনে রাখার মতো। এমন বিখ্যাত ক্রিকেট বিশেষজ্ঞদের থেকে স্বীকৃতি পাওয়া সত্যিই দারুণ কিছু। আইসিসির মাসসেরা নারী ক্রিকেটার আমার জন্য অনেক অনুপ্রেরণার উৎস।’

নাহিদার প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন স্বদেশি ফারজানা হক পিংকি ও পাকিস্তানের সাদিয়া ইকবাল। পাকিস্তানের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজের সিরিজ নির্ধারণী তৃতীয় ওয়ানডেতে ম্যাচসেরা হয়েছেন পিংকি। শেষ ওয়ানডেতে করেছেন ১১৩ বলে ৬২ রান। তাতে বাংলাদেশ ৭ উইকেটে জিতে ওয়ানডে সিরিজ জেতে ২-১ ব্যবধানে। নভেম্বরে তিন ওয়ানডে খেলে ৩৬.৬৭ গড় ও ৪৬.৬৩ স্ট্রাইক রেটে করেন ১১০ রান। যা নভেম্বর মাসে ওয়ানডেতে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রান।

নাহিদার পর নভেম্বরে ওয়ানডেতে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ৬ উইকেট নিয়েছেন সাদিয়া। যার মধ্যে বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে ৯ ওভারে ১৩ রান খরচ করে নেন ৪ উইকেট। সেই ম্যাচে বাংলাদেশ ৮১ রানে অলআউট হয়ে গিয়েছিল, যা পাকিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশের নারী ক্রিকেট দলের ওয়ানডেতে সর্বনিম্ন স্কোর।


আরও পড়ুন
Hexus IELTS