মঙ্গলবার | ৫ই মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ২১শে ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম
শ্রীমঙ্গলের সেন্ট মার্থাস উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরনী ফুলতলা ইউনিয়নে আইনশৃঙ্খলা সভা অনুষ্ঠিত মৌলভীবাজারে একতা যুব সংস্থার তাফসিরুল কোরআন মাহফিল ৩০ জানুয়ারি শীতার্ত মানুষের কল্যাণে স্টুডেন্ট ওয়েলফেয়ার সোসাইটির শীতবস্ত্র বিতরণ ‘বলাই-সজীব ভাই-ভাই, এক দড়িতে ফাঁসি চাই’ কুশিয়ারা পাড়ের ঐতিহ্যবাহী পৌষ সংক্রান্তির মাছের মেলা অদক্ষ চালক কেড়ে নিল প্রাণ; নতুন বই নিয়ে বাড়ি ফিরা হল না খাদিজার কুলাউড়ায় ঐতিহ্যবাহী ‘মাছের মেলা’ নবনির্বাচিত কৃষিমন্ত্রীকে ফুলেল শুভেচ্ছা দিয়েছে জেলা আওয়ামিলীগ শ্রীমঙ্গলে হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের উদ্যোগে ত্রিপুরা পল্লীতে শীতবস্ত্র বিতরন

ন্যাশনাল নেচার সামিট ২০২৩ এ সারাদেশে প্রথম ফ্লাওয়ার্স স্কুলের ৩ শিক্ষার্থী

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: রবিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০২৩, ১০:০২ পূর্বাহ্ণ
ন্যাশনাল নেচার সামিট ২০২৩ এ সারাদেশে প্রথম ফ্লাওয়ার্স স্কুলের ৩ শিক্ষার্থী

ন্যাশনাল নেচার সামিট ২০২৩ এ সারাদেশে প্রথম স্থান অধিকার করেছেন মৌলভীবাজারের দি ফ্লাওয়ার্স কে জি এন্ড হাইস্কুল এর তিন কৃতী শিক্ষার্থীর একটি দল। বিজ্ঞান ক্লাবের এই তিন মেধাবী ‘সেভ আওয়ার মাদারল্যান্ড’ শীর্ষক একটি প্রজেক্ট উপস্থাপন করেছিলেন।

শনিবার (৯ ডিসেম্বর) বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তোলে দেওয়া হয়। দি ফ্লাওয়ার্স কে জি এন্ড হাইস্কুল এর বিজ্ঞান ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা পরিচালক, জীববিজ্ঞানের শিক্ষক রোকসানা আক্তার এর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

পুরস্কার জয়ী তিন শিক্ষার্থী হলেন- বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী তুলনা ধর তুষ্টি, বিততি রায় বিদ্যা ও মাহবুব আহমেদ সাদি।

জীববিজ্ঞানের শিক্ষক রোকসানা আক্তার বলেন, ন্যাশনাল নেচার সামিট ২০২৩ এ আমাদের স্কুল থেকে তিনজন শিক্ষার্থী ‘সেভ আওয়ার মাদারল্যান্ড’ শীর্ষক প্রজেক্ট উপস্থাপন করে সারাদেশের মধ্যে প্রথম স্থান অর্জন করে আমাদেরকে গর্বিত করেছে। তিনি এই সম্মেলনে শিক্ষার্থীদের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণে অভিভাবকদের পূর্ণ সহযোগিতার জন্য কৃতজ্ঞতা জানান।

স্কুলটির বিজ্ঞান ক্লাবের প্রতিষ্ঠাতা এই শিক্ষক বলেন, আমাদের বিদ্যালয়ের বিজ্ঞান ক্লাবের এই টিম ন্যাশনাল নেচার সামিট ২০২২ এ সিলেট আঞ্চলিক পর্যায়ে বিজয়ী হয়েছিল। আমি আমাদের ক্লাবের শিক্ষার্থীদের তিনটি প্রজেক্ট ও দুইটি দেয়ালিকা নিয়ে উপস্থিত হয়েছিলাম। প্রজেক্টে জুনিয়র ক্যাটাগরীতে প্রথম পুরস্কার পেয়েছিল তুলনা, বিদ্যা ও সাদী। তারাই এবার জাতীয় পর্যায়ে অংশগ্রহণ করেছে এবং বিজয়ী হয়েছে, আলহামদুলিল্লাহ।

রোকসানা আক্তার বলেন, দেয়ালিকায় দ্বিতীয় পুরস্কার পেয়েছিল দশম শ্রেণির বিজ্ঞান বিভাগের নুসরাত খানম নওশীন, হুমায়রা জামান মীম ও মো. জাফরুল্লাহ জিহান।। দ্বিতীয় পুরস্কার পাওয়া শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণ করার সুযোগ থাকলেও তারা বিভিন্ন কারণে উপস্থিত হয়নি।

২০১৯ সালে বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের বিজ্ঞান বিষয়ে আগ্রহী করতে স্কুলে একটি বিজ্ঞান ক্লাব গঠন করা হয় জানিয়ে তিনি বলেন, করোনাকালীন সময় ও পরবর্তীতে প্রয়োজনেই এটা ডিজিটাল বিজ্ঞান ক্লাব হিসেবে পরিচালনা করে আসছি। প্রজেক্ট বিজয়ী তিনজন শিক্ষার্থীই ক্লাবের সক্রিয় সংগঠক। আশা করছি তাদের এই অর্জন আমাদের ক্লাবের শিক্ষার্থীদের জন্য অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করবে বর্তমানে আমাদের ক্লাবের সদস্য সংখ্যা ২৪৫। পরিকল্পনা আছে খুব ভালো কিছু করার, ইনশাল্লাহ।


আরও পড়ুন
Hexus IELTS