মঙ্গলবার | ৫ই মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ২১শে ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম
শ্রীমঙ্গলের সেন্ট মার্থাস উচ্চ বিদ্যালয়ের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরনী ফুলতলা ইউনিয়নে আইনশৃঙ্খলা সভা অনুষ্ঠিত মৌলভীবাজারে একতা যুব সংস্থার তাফসিরুল কোরআন মাহফিল ৩০ জানুয়ারি শীতার্ত মানুষের কল্যাণে স্টুডেন্ট ওয়েলফেয়ার সোসাইটির শীতবস্ত্র বিতরণ ‘বলাই-সজীব ভাই-ভাই, এক দড়িতে ফাঁসি চাই’ কুশিয়ারা পাড়ের ঐতিহ্যবাহী পৌষ সংক্রান্তির মাছের মেলা অদক্ষ চালক কেড়ে নিল প্রাণ; নতুন বই নিয়ে বাড়ি ফিরা হল না খাদিজার কুলাউড়ায় ঐতিহ্যবাহী ‘মাছের মেলা’ নবনির্বাচিত কৃষিমন্ত্রীকে ফুলেল শুভেচ্ছা দিয়েছে জেলা আওয়ামিলীগ শ্রীমঙ্গলে হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের উদ্যোগে ত্রিপুরা পল্লীতে শীতবস্ত্র বিতরন

জিল্লুর রহমান কাছে তরুণীর অভিযোগ, আশ্বাস দিলেন চার লেন সড়ক হবে

নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: সোমবার, ৪ ডিসেম্বর, ২০২৩, ৭:৪৯ পূর্বাহ্ণ
জিল্লুর রহমান কাছে তরুণীর অভিযোগ, আশ্বাস দিলেন চার লেন সড়ক হবে

মৌলভীবাজার-৩ আসনের আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী মোহাম্মদ জিল্লুর রহমান মনোনয়ন বাছাই অনুষ্ঠানে যোগ দিতে যাচ্ছিলেন। তখনই পথ আটকান এক তরুণ। তখন তিনি তার কাছে জিজ্ঞাসা করলেন কোন কিছু বলার আছে কি না। তখন সেই তরুণী ভাঙা সড়কের নাজেহাল অবস্থার অভিযোগ দেন। সেই সময়ই মোহাম্মদ জিল্লুর রহমান সেই তরুণীকে আশ্বাস দেন আগামী আট-নয় মাসের মধ্যে সেই সড়ক চার লেনের হবে।

সোমবার (৪ নভেম্বর) বিকেলে মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে এই ঘটনাটি ঘটে। মোহাম্মদ জিল্লুর রহমানের এমন আশ্বাসে সেই তরুণী তাকে ধন্যবাদ জানান। সেই সাথে তিনি বলেন, আমি ব্যক্তিগতভাবে মনে করি মোহাম্মদ জিল্লুর রহমান একজন যোগ্য প্রার্থী।

জানা যায় মৌলভীবাজার সদর উপজেলার শাহবন্দর এলাকার কলেজ ছাত্রী পিংকি জেলা প্রশাসকের অফিসের একটি কাজে আসেন। তখন দেখতে পান সেখানে এসেছেন আওয়ামীলীগের মনোনীত প্রার্থী নৌকার নতুন মুখ মোহাম্মদ জিল্লুর রহমান। তখন সেই তরুণী ভাবলেন দীর্ঘ দু:খের কথা এখন বলা যায়। সাথে সাথে সালাম দিয়ে বললেন, আমাদের বাড়ির পাশের শেরপুর যে সড়ক সেটার খুবই খারাপ অবস্থা। এটা কেউ দেখে না, এটা নিয়ে কেউ কথাও বলে না। কোন রোগী যদি এই সড়ক দিয়ে আসে, উনার অবস্থা এখানেই খারাপ হয়ে যাবে।

তখন মোহাম্মদ জিল্লুর রহমান বলেন, মিরপুর থেকে শ্রীমঙ্গল হয়ে শেরপুর পর্যন্ত একটি চারলেন সড়ক হবে। আগামী আট-নয় মাসের মধ্যে এটার টেন্ডার কাজ শুরু হবে। অচিরেই এই সমস্যার সমাধান হবে। আমি এটা নিয়ে কাজ করতেছি।


আরও পড়ুন
Hexus IELTS